“একজন রাজাকার সারাজীবনই রাজাকার,কিন্তু একজন মুক্তিযোদ্ধা সারাজীবন মুক্তিযোদ্ধা নয়-এবং আসল সত্য


-সজল আহমেদ

“একজন রাজাকার সারাজীবনই রাজাকার,কিন্তু একজন মুক্তিযোদ্ধা সারাজীবন মুক্তিযোদ্ধা নয়।

– হুমায়ুন আজাদ”

বাণী পইড়া মনে হইতেছিলো কোন সেক্টর কমান্ডারের বাণী পড়তাছি,কিন্তু পরে গিয়া দেখি কি, বাণী দাতা নিজেই যুদ্ধের সময় বাঁইচা থাইকাও যুদ্ধ করেন নাই।১৯৪৭ সালে জন্ম হইলে ৭১ এ সে আছিলো ২৪ বছরের তাগড়া জুয়ান লোক।তখন সে যুদ্ধ না কইরা ঘরে বইসা কি ছিড়ছিলো?

আমি ক্লাশ টেন এ পড়নের সময় ভাবতাম আজাদ সাব মনেকয় মুক্তিযোদ্ধা আছিলেন কিন্তু না যুদ্ধের সময় সে আছিলেন সুবিধাবাদী, ওনার চেতনা জাইগা উঠলো ৭১ এর পর।যুদ্ধের পর দু’একটা নিম্নমানের উপন্যাস টুপন্যাস আর কয়টা কবিতা লিখলেই কি আমাগো তরুণ প্রজন্মের কাছে তাঁর বাণী ওহীসম হইতে হবে নিকি?

যারা এই বাণী ওহীসম কইরা ওয়ালে টাঙ্গাইয়া রাখলেন তাঁরা মুক্তিযোদ্ধাগো অপমান করলো কি না?

Advertisements